পুজোর আগেই ১ অক্টোবর থেকে খুলছে সিনেমা হল, থিয়েটার সহ একাধিক কিছু



করোনা মহামারীর দাপটে যখন বিশ্বের সবর্ত্র ছড়িয়ে পড়েছিল আতঙ্ক, আস্তে আস্তে যখন তা গ্রাস করছিল ভারতকেও, সেই সময় শুরু হয়েছিল লকডাউন, বন্ধ হয়ে গেছিল বিনোদনের সব মাধ্যমই। এরপর পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হলে আনলক পর্যায়ে রাজ্যে একে একে স্বাভাবিক হয় পরিবহন ব্যবস্থা, শুরু হয় মেট্রো চলাচল, খুলে যায় শপিং মল, পার্ক, তবে দীর্ঘদিন ধরে বন্ধ থাকা সিনেমাহল কবে খুলবে, পুজোর আগেই কি আবার হলে বসে সিনেমা দেখার সুযোগ হবে প্রশ্ন ছিল অনেকের, তবে খুব শীঘ্রই খুলছে সিনেমাহল, খোলা মঞ্চে থিয়েটার এবং আরও অনেক কিছু যা আবার মানুষ হয়তো ফিরিয়ে নিয়ে যাবে স্বাভাবিক এক জীবনে। 

 
মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় শনিবার ট্যুইটে জানান সময়ের সাথে সাথে স্বাভাবিক হচ্ছে সবকিছুই, এই অবস্থায় পরিস্থিতির সাথে তাল মিলিয়ে চালু হতে পারে যাত্রা, নাটক, থিয়েটার, সিনেমা, সঙ্গীতানুষ্ঠান, নৃত্যানুষ্ঠান, আবৃত্তি কিংবা  ম্যাজিক শো সমস্ত কিছু। মুখ্যমন্ত্রীর জানিয়েছেন  আগামী ১ অক্টোবর থেকে সমস্ত স্বাস্থ্যবিধি এবং  শারীরিক দূরত্ববিধি মেনে চালু হতে পারে এই সমস্ত কিছু। 

নাটক, থিয়েটার, সিনেমা হল শুরু হলেও দর্শক সংখ্যা রাখতে হবে ৫০ এর মধ্যে,  মাস্ক ছাড়া ঢোকা যাবে না,  বাধ্যতামূলক থাকবে স্যানিটাইজার ব্যবহার।মুখ্যমন্ত্রীর এহেন টুইটের পর উচ্ছ্বাসিত মানুষ। বিনোদন জগতের মানুষরাও এই টুইটে স্বস্তির নিঃশ্বাস ফেলেন। বিনোদন জগতের অনেক মানুষকেই দীর্ঘদিন কাজ বন্ধ থাকার ফলে পালটে ফেলতে হয়েছিল জীবিকা, তাই এই ঘোষণায় সিনেমা, যাত্রা, গানের অনুষ্ঠান, ম্যাজিক শো, র সাথে যুক্ত শিল্পীদের সমস্যার সমাধান হতে চলেছে। 

তবে মঞ্চে ফিরতে সতর্কতা বজায় রাখতে হবে, কারণ করোনা বিধি মেনে সিরিয়াল, সিনেমার শ্যুটিং শুরু হলেও বেশ কিছু অভিনেতা অভিনেত্রী আক্রান্ত হন করোনায়। তাই সমস্ত নির্দেশাবলী যথাযথ ভাবে মেনে তবেই মঞ্চে ফিরতে হবে   শিল্পীদের। পুজোর আগে এমন খবরে আনন্দিত শিল্পীরা।

Recent Content

link to দেশবাসীর উদ্দেশ্যে ভাষণে কি বললেন প্রধানমন্ত্রী, জেনে নিন

দেশবাসীর উদ্দেশ্যে ভাষণে কি বললেন প্রধানমন্ত্রী, জেনে নিন

করোনা কেন্দ্রিক প্রসঙ্গ, বা পুজো কেন্দ্রিক, হতে পারে লকডাউন, বা বড় কোনো...